Category: শেষ পাতা

ঝিনাইদহে এক দিনমুজুরকে পিটিয়ে জখম

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ জমি মালিকের ক্ষেতে জোনে যেতে দেরি হওয়ায় দিনমুজুর বিমল কুমার (৫৫) ও তার মেয়ে গিতা রানীকে (২৫) পিটিয়ে গুরুতর ভাবে আহত করা হয়েছে। পরে আহত দু’জনকে হাসপাতালে ভর্তী করা হয়েছে। মারপিটের ঘটনায় থানা পুলিশ করলে হত্যা করা হবে বলেও হুমকি দেওয়া হচ্ছে বাড়ীতে এসে। এ ঘটনাটি ঘটেছে গত বৃহস্পতিবার সকালে ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার পুরন্দপুর গ্রামে।আহত বিমল কুমার জানান, বৃহস্পতিবার প্রতিবেশী ফজের আলীর মাঠে জনে যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু একজনের পরিবর্তে অন্যজন জনে পাঠানোর অপরাধে আমাকে মাঠের মধ্যেই ফজের আলীসহ তার পরিবারের সদস্যরা লোহার রড ও লাঠি দিয়ে পিটিয়ে আহত করেছে। এসময় আমার মেয়ে গীতা রানী ঠেকাতে আসলে তাকেও পিটিয়ে আহত করা হয়েছে।তিনি আরও জানান, এখন তারা প্রতিনিয়ত বাড়ীতে এসে হুমকি-ধামকি দিচ্ছে থানা-পুলিশ করলে জীবনে মেরে ফেলা হবে। জীবনের মায়া থাকলে থানায় যাওয়ার প্রয়োজন নেই। মহেশপুর থানা অফিসার ইনচার্জ আমিনুল ইসলাম বিপ্লব জানান, এখনও পর্যন্ত মারামারির ঘটনায় কেউ কোন অভিযোগ করেনি। অভিযোগ হাতে পেলেই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রের উদ্যোগ্যে ভ্রাম্যমান লাইব্রেরীতে বই পড়ে সেরা পুরষ্কার পেল ভারতেশ্বরী হোমসের ছাত্রীরা


মীর আনোয়ার হোসেন টুটুল,টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধি
আলোকিত মানুষ চাই-এই শ্লোগানে বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রের উদ্যোগে ভ্রাম্য লাইব্রেরীতে বই পরে সেরা পুরষ্কার পেয়েছে টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে নারী জাগরণের অন্যতম বিদ্যাপিঠ ভারতেশ্বরী হোমসের ছাত্রীরা।১৭০ জন ছাত্রী বই পরে পুরষ্কার লাভ করেছে।এ উপলক্ষে গতকাল মঙ্গলবার রাতে ভারতেশ্বরী হোমসের পিএিম হলে এক পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয।অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন মির্জাপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইসরাত সাদমীন।ভারতেশ্বরী হোমসের প্রিন্সিপাল মিসেস প্রতিভা রানী হালদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন কুমুদিনী ওয়েল ফেয়ার ট্রাস্টের শিক্ষা পরিচালক ও একুশে পদক প্রাপ্ত প্রতিভা মুৎসুদ্দি, ভারতেশ্বরী হোমসের সিনিয়র উপাধাক্ষ মি. গোলাম কিবরিয়াসহ ভারতেশ্বরী হোমসের শিক্ষক কর্মচারী ও ছাত্রীবৃন্দ।
ভারতেশ্বরী হোমসের বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রের সংগঠনের সংগঠক কবি ও সাহিত্যক হেনা সুলতানা ও সহকারী সংগঠক সাবিরা ইয়াসমিন জানান, ভারতেশ্বরী হোমস নারী শিক্ষার একটি অনন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।এখানে সহ¯্রাধিক ছাত্রী পড়াশোনা করে আসছে।বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রের উদ্যোগে এখানে একটি বই পড়ার সংগঠন রয়েছে।হোমসের ছাত্রী ও শিক্ষক-কর্মচারীরা এর সদস্য।প্রতি সপ্তাহে বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্র থেকে (একটি বাস)ভ্রাম্যমান লাইব্রেরী হোমসে এসে ছাত্রী ও শিক্ষকদের বই দিয়ে থাকেন।ছাত্রী ও শিক্ষকরা বই পরে আবার সাহিত্য কেন্দ্রের কর্মকর্তাদের ফেরত দিয়ে থাকেন।এ বছর ১৭০ জন ছাত্রী পুরষ্কার পেয়েছে।এর মধ্যে ৭ম শ্রেণীর ছাত্রী চিনময়ী চন্দ সেরা পাঠকের পুরষ্কার লাভ করেছে।

গাজীপুরে “জেলা পর্যায়ে জাতীয় ই-গভর্নমেন্ট নেটওয়ার্ক” ব্যবহার সংক্রান্ত প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত


মুহাম্মদ আতিকুর রহমান (আতিক), গাজীপুর জেলা প্রতিনিধি ঃ
গাজীপুরে “জেলা পর্যায়ে জাতীয় ই-গভর্নমেন্ট নেটওয়ার্ক” (ঘধঃরড়হধষ ব-এড়াবৎহসবহঃ ঘবঃড়িৎশ) ব্যবহার সংক্রান্ত প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
২৯ মার্চ বুধবার সকালে গাজীপুর জেলা পরিষদের প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে ওই প্রশিক্ষণ কর্মশালার উদ্বোধন করা হয়। প্রশিক্ষণ কর্মশালার উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি গাজীপুরের জেলা প্রশাসক এস এম আলম। বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল-এর সহযোগিতায় ও গাজীপুর জেলা প্রশাসন আয়োজিত প্রশিক্ষণ কর্মশালায় সভাপতিত্ব করেন গাজীপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মোঃ ইফতেখার আহমেদ চৌধুরী।
অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন গাজীপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোঃ মাহমুদ হাসান, গাজীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ সোলাইমান হোসেন প্রমুখ। প্রশিক্ষণ কর্মশালায় জাতীয় ই-গভর্নমেন্ট নেটওয়ার্ক সম্পর্কে ধারণা, ব্যবহারের নিয়মাবলী, ভিডিও কনফারেন্স সম্পর্কে সাধারণ ধারণা, ভিডিও কনফারেন্স-এর কমন ট্রাবলসুটিং ও মাল্টি কনফারেন্স তৈরি করণ এবং অন্যান্য বিষয়ে মাল্টি মিডিয়া প্রজেক্টের মাধ্যমে প্রশিক্ষণ সংক্রান্ত তথ্য উপস্থাপন করেন ফাইবার এট হোমের ডেপুটি ম্যানেজার মোঃ খায়রুল ইসলাম। প্রশিক্ষণ কর্মশালায় গাজীপুর জেলা ও ৫টি উপজেলা পর্যায়ের সরকারি বিভিন্ন অফিসের ১১৫জন প্রধান কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

গাজীপুর জেলা আনসার ও ভিডিপি’র বার্ষিক সমাবেশ অনুষ্ঠিত


মুহাম্মদ আতিকুর রহমান (আতিক), গাজীপুর জেলা প্রতিনিধি ঃ
গাজীপুর জেলা আনসার ও ভিডিপি’র বার্ষিক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২৮ মার্চ মঙ্গলবার সকালে গাজীপুর শহরের রথখোলাস্থ বঙ্গতাজ অডিটরিয়ামে ওই সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। গাজীপুরের জেলা প্রশাসক এস এম আলমের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন গাজীপুর-৪ (কাপাসিয়া) আসনের সংসদ সদস্য সিমিন হোসেন রিমি। ব্যাটালিয়ন আনসার মোঃ রেজাউল করিমের উপস্থাপনায় সমাবেশে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আনসার ও ভিডিপি’র উপ-মহাপরিচালক (প্রশিক্ষণ) এ কে এম মিজানুর রহমান (পিএএমএস), আনসার ও ভিডিপি’র ঢাকা রেঞ্জের পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) মোহাম্মদ আছলাম সিকদার, গাজীপুরের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হারুন অর রশিদ-এর অসুস্থ্যতাজনিত অনুপস্থিতিতে তার পক্ষে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাসেল শেখ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন আনসার ও ভিডিপি’র গাজীপুর জেলা কমান্ড্যান্ট ডঃ মোঃ সাইফুর রহমান (পিএএমএস)।
সমাবেশে ভিডিপি সদস্যদের কার্যক্রমের উপর সংক্ষিপ্ত প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন ভাওয়ালগড় ইউনিয়ন দলনেত্রী মোসাঃ মুসলিমা আক্তার, মির্জাপুর ইউনিয়ন দলনেতা মোঃ কামাল হোসেন। উপজেলা কোম্পানী সদস্যদের কার্যক্রমের উপর সংক্ষিপ্ত প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন কালীগঞ্জ উপজেলা কোম্পানী কমান্ড্যান্ট মোঃ মজিবুর রহমান। ভাল কাজের জন্য পুরস্কার হিসেবে ২৬জন আনসার ও ভিডিপি সদস্যকে বাইসাইকেল, সেলাই মেশিন ও ছাতা দেয়া হয়। সমাবেশে তিন শাতাধিক আনসার ও ভিডিপি সদস্য উপস্থিত ছিলেন।

মহেশপুরে মুক্তিযোদ্ধাসহ ১৭ জনকে গুণীজন সম্মাননা প্রদান

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার পদ্মপুকুর ডিগ্রী কলেজ চত্তরে গতকাল সোমবার বিকালে বার্ষিক ক্রীড়া-সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী ও মুক্তিযোদ্ধাসহ ১৭ জনকে গুণীজন সম্মাননা প্রদান করা হয়েছে।পদ্মপুকুর ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুল হাই এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বার্ষিক ক্রীড়া-সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী ও গুণীজন সম্মাননা অনুষ্ঠানের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন ঝিনাইদহ-৩ আসনের সংসদ সদস্য নবী নেওয়াজ।অনুষ্ঠানে অতিথির বক্তব্য রাখেন বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন মহেশপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশাফুর রহমান,মহেশপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ময়জদ্দীন হামিদ,উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার ড.আব্দুল মালেক গাজি,ডেপুটি কমান্ডার রবিউল আওয়াল, পৌর মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার কাজি আব্দুস সাত্তার, মহেশপুর পৌর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ এমদাদুল হক বুলু, মহেশপুর উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি আজিজুল হক আজা, জেলা কৃষকলীগের যুগ্ম সম্পাদক আলহাজ¦ শরীফুল ইসলাম, শ্যামকুড় ইউপি চেয়ারম্যান আমানউল্লা, শ্যামকুড় ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি তিমির চৌধুরী প্রমুখ। পরে মুক্তিযোদ্ধাসহ ১৭ জনকে গুণীজন সম্মাননা প্রদান করা হয়।

টঙ্গী সিরাজ উদ্দিন সরকার বিদ্যানিকেতন এন্ড কলেজে মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা রচনা ও চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা


এস,এম,মনির হোসেন জীবন : টঙ্গীর সিরাজ উদ্দিন সরকার বিদ্যানিকেতন এন্ড কলেজের উদ্যোগে ৪৬তম মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে, কুইজ, রচনা, চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্টান রোববার কলেজ প্রাঙ্গণে অনুষ্টিত হয়েছে। অধ্যক্ষ মোঃ ওয়াদুদুর রহমানের সভাপতিত্ত্বে শিক্ষক প্রতিনিধি মোঃ সুরুজ্জামান সরকারের পরিচালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন গাজীপুর জজ কোর্টের স্পেশাল পি.পি এডভোকেট মোঃ শাহাজাহান,অভিভাবক ফোরামের যুগ্ম আহবায়ক মোঃ আজাহারুল ইসলাম বেপারী, প্রভাতী শাখার সহকারী প্রধান জাহান আরা বেগম, দিবা শাখার সহকারী প্রধান মজিবুর রহমান, কলেজ ইনচার্জ মোঃ আবদুল আলিম, উত্তরা সেন্ট্রাল প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এস,এম,মনির হোসেন জীবন ভোকেশনাল ইনচার্জ মোঃ হাবিবুর রহমান, সিনিয়র শিক্ষক, মোঃ আনিসুর রহমান, মাওলানা মহিউদ্দিন, রতন কুমার ঘোষ, মোঃ আবু বকর, চৌধুরী আশরাফ হোসেন, মোঃ আশরাফ আলী, মোঃ জাকির হোসেন, গোলজার হোসেন আকন, সাবিহা সুলতানা, তামরিন চৌধুরী, মোঃ মহসিন, মোঃ আব্দুর রহিম প্রমুখ। আলোচনা সভা শেষে চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ শেষে এক মনোজ্ঞ সাংসৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

আমাদের প্রিয় সৈয়দপুর এর বার্ষিক ক্রীড়ানুষ্ঠান অনুষ্ঠিত


সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধিঃ ২৬শে মার্চ মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে স্বেচ্ছাসেবী সামাজিক সংগঠন আমাদের প্রিয় সৈয়দপুর এর বার্ষিক ক্রীড়ানুষ্ঠান ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার (২৬ মার্চ) সৈয়দপুর গোলাহাট এপিএস চত্ত্বরে বিশাল এই ক্রীড়া ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। এতে অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তাফা, বিশিষ্ট সমাজ সেবক ওমর আলী। ২৬ মার্চ উপলক্ষে ২৬টি ক্যাটাগরীতে উক্ত ক্রীড়ানুষ্ঠানে সারাদিন ব্যাপি চলা এই ক্রীড়ানুষ্ঠানে শতাধিক ছোট ছোট শিশু-কিশোর ও এলাকাবাসী অংশগ্রহন করে।
অংক দৌড়, বিস্কুট দৌড়, হাড়িভাঙ্গা, ফ্যাশন শো, রশি খেলা, বালিস খেলা, সহ দর্শকদের নজর কাড়ে যেমন খুশি তেমন সাজো খেলাটি। এতে ক্ষুদে মুক্তিযোদ্ধা ফায়জান ১ম স্থান অধিকার করে।
সংগঠন সভাপতি এসরার আহমেদ এর সভাপতিত্বে এতে আরো উপস্থিত ছিলেন সিনিয়র সহ-সভাপতি আজিম, সহ-সভাপতি গুলজার, সাধারণ সম্পাদক নওশাদ আনসারী, সাংগঠনিক সম্পাদক মিথুন হাসান আয়ান, অর্থ সম্পাদক সাজু, সুজন, সোহেল, আলমগীর, শাহজাদা, রুবেল, শাহিদ, বিকি প্রমুখ। এছাড়া উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সেতুবন্ধন সভাপতি আলমগীর হোসেন, সহ-সাধারণ সম্পাদক খুরশীদ জামান কাকন।
পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের পূর্বে এক সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে সংগঠন সভাপতি এসরার আহমেদ বলেন ২৬ মার্চ আমাদের অহংকার। স্বাধীনতা দিবসের এইদিনে আমারা প্রতিবছর শিশু-কিশোরদের নিয়ে এই অনুষ্ঠান আয়োজন করে যাচ্ছি যেটা পরবর্তী বছরেও অব্যাহত থাকবে।
অর্থ সম্পাদক সাজু জানান, আমরা নিজস্ব তহবিল থেকে প্রতি বছর এই আয়োজন থাকি। এতে অংশগ্রহনকারী কারোর কাছ থেকে কোন বিনিময় মূল্য নেওয়া হয় নি। খেলা শেষে আগত দর্শকদের জন্য রাখা হয় ফ্রি লটারীর ব্যবস্থা।
জাতীয় সংগীত এর মাধ্যমে উক্ত খেলা সূচনা করা হয়। খেলা শেষে রাখা হয় সংক্ষিপ্ত সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের ব্যবস্থা। পুরো অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন ওয়াকার আহমেদ, ইয়াসমিন সুলতানা ও নাসরিন সুলতানা। খেলা শেষে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন আমন্ত্রিত অতিথীরা।

সিলেটে বোমা হামলায় নিহত ইনেস্পক্টর মনিরুলের বাড়ীতে চলছে শোকের মাতম


জুয়েল রানা লিটন, নোয়াখালী প্রতিনিধি:
সিলেটে শিবপুরে জঙ্গিদের বিস্ফোরিত বোমার আঘাতে নিহত সিলেট সিটি এসবির পরিদর্শক মনিরুল ইসলামের নোয়াখালী সদরের পূর্ব এওজবালিয়া গ্রামে বাড়ীতে এখন চলছে মাতম। মৃত নুরুল ইসলামের পরিবারের ৪ পুত্র ও ৩ কন্যা সন্তানের মধ্যে মনির ছিল দ্বিতীয়। ২০০৩ সালে উপ-পরিদর্শক হিসেবে বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে যোগদান করেন। পরে পদন্নোতী লাভ করে পরিদর্শক হিসেবে সিলেটের সিটি এসবি শাখায় কর্মরত ছিলেন। চাকুরিরত অবস্থায় ২০১০ সালে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন তিনি। তাদের সংসারে রয়েছে মোজাক্কেরুল ইসলাম ফরাবি নামের ১৭ মাসের ১ পুত্র সন্তান। স্ত্রী পারভিন আক্তার স্বামীর মৃত্যুর সংবাদ শুনে হতবাক। বৃদ্ধ মাতা আমেনা খাতুন পুত্রের মৃত্যুর সংবাদ শুনে মুচ্ছা যাচ্ছেন বার বার। মৃত্যুর সংবাদে পুরো এলাকায় নেমে এসেছে শোকের ছায়া। তারা অপেক্ষায় আছেন কখন আসবে মনিরের লাশ।
নিহতের ভাই আবদুল করিম জানায়, গেল শুক্রবার গ্রামের বাড়ীতে এসেছিলেন মনিরুল তার ছোট ভাই সাইফুল ইসলামের বিয়ের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে। কর্মস্থলে যোগ দিতে শনিবার ভোরে বাড়ী থেকে যাত্রা করেন তিনি। বিকাল ৩টায় নিজ কর্মস্থল সিলেটে যোগদান করেন তিনি সেখান থেকে মুঠোফোনে মা ও স্ত্রীকে জানিয়েছিলেন তোমরা আমার জন্য দোয়া করো আর একমাত্র সন্তান ফরাবিকে স্নেহ দিও। কর্মরত অবস্থায় বোমা বিস্ফোরক বিষয়ে বছরকাল আমেরিকায় বিশেষ প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন। চাকুরিরত অবস্থায় বেশ প্রশংশিত হয়েছে ইনেস্পেক্টর মনির। তার মৃত্যুতে পরিবারের সদস্য ও এলাকাবাসী শোকাহত হলেও গর্বিত তারা তাদের সন্তান জঙ্গিদের র্নিমূল করতে গিয়ে শহীদ হয়েছেন বলে। পরিবারকে সমবেদনা জানাতে নিহতের বাড়ীতে অবস্থান করছে সুধারাম মডেল থানা পুলিশের একটি দল। সিলেটে দুপুর ২টায় জানাযা শেষে মনিরুলের মরদেহ সড়ক পথে নোয়াখালীর উদ্দেশ্যে নিয়ে আসার কথা রয়েছে এবং জানাযা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হবে।

টাঙ্গাইলে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনা ও নানা আয়োজনে ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপন


মীর আনোয়ার হোসেন টুটুল, টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধি
৩১ বার তোপধ্বনি, শহীদ মিনারে পুষ্পস্তক অর্পন, সরকারী-বেসরকারী প্রতিষ্ঠানে জাতীয় পতাকা উত্তোলন, কুচকাওয়াজ, ড্রিসপ্লে, ক্রীড়া প্রতিযোগিতা, মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা, আলোচনা সভা ও মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে আজ রবিবার টাঙ্গাইলসহ জেলার বাসাইল, সখীপুর, দেলদুয়ার, নাগরপুর, কালিহাতি, ভুয়াপুর, গোপালপুর, ঘাটাইল, মধুপুর, ধনবাড়ি, বাসাইল ও মির্জাপুর উপজেলাসহ ১২ উপজেলায় ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপিত হয়েছে। উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা পরিষদ এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।
সুর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে থানা প্রাঙ্গনে ৩১ বার তোপধ্বনির মধ্য দিয়ে দিবসের সুচনা করেন উপজেলা প্রশাসন।এরপর কলেজ রোডের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অপর্ন করেন উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা পরিষদ, মির্জাপুর থানা, মির্জাপুর রিপোর্টার্স ইউনিটি, প্রেস ক্লাব, মির্জাপুর বিশ্ববিদ্যালয় কলেজসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল ও সামাজিক সংগঠন।সকাল পৌনে আটার দিকে মির্জাপুর পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে কুচকাওয়াচ ও ড্রিসপ্লে অনুষ্ঠানের শান্তির প্রতীক কবুতর উড়িয়ে অনুষ্ঠানের আনুষ্ঠানিক উদ্ধোধন ও অভিবাদন গ্রহণ করেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মীর এনায়েত হোসেন মন্টু।কুচকাওয়াচ ও ড্রিসপ্লেতে স্কুল কলেজের ছাত্র-ছাত্রী, বয়স্কাউটস, গালর্স গাইড, বিএনসিসি, পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস, আনসার ও ভিডিপি।এ সময় উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইসরাত সাদমীন, পৌরসভার মেয়র মো. সাহাদত হোসেন সুমন, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাইন উদ্দিন, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান এ এস এম মোজাহিদুল ইসলাম মনির ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মীর্জা শামীমা আক্তার শিফা।এরপর আলোচনা সভা ও মনোঞ্জ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হয়েছে।
এর আগে গতকাল রাতে শনিবার মুক্তির মঞ্চের সামনে মোমবাতি প্রজ্জলন, মৌন মিছিল ও আলোচনা সভার মধ্য দিয়ে ২৫শে মার্চ গণহত্যা দিবস পালন করা হয়েছে।উপজেলা প্রশাসন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও বাইমহাটি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় এ মোমবাতি প্রজ্জলন, মৌন মিিছল ও আলোচনা সভার আয়োজন করে।
উপজেলা পরিষদ চত্তরের মুক্তির মঞ্চের সামনে মোমবাতি প্রজ্জলনের মাধ্যমে শহীদদের স্মরণ করা হয়।মোমবাতি প্রজ্জলনের উদ্ধোধন করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইসরাত সাদমীন।এসময় মির্জাপুর বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের অধ্যক্ষ মো. সালাউদ্দিন আহমেদ বাবর, মির্জাপুর রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি মীর আনোয়ার হোসেন টুটুল, প্রেস ক্লাবের সভাপতি মো. শামসুল ইসলাম শহিদ, দেওহাটা এ জে উচ্চ বিদ্যালয়য়ের প্রধান শিক্ষক মো. খোরশেদ আলম, চিত্র শিল্পী খন্দকার হুমায়ুন কবীরসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্র-ছাত্রী ও রাজনৈতিক নেত্রীবৃন্দ।
উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও বাইমহাটি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মিসেস হোসনেয়ারা বেগমের নের্তৃত্বে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা বিভিন্ন প্লাকার্ড নিয়ে শহরে মৌন মিছিল বের করেন।মিছিলে উপস্থিত ছিলেন সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রনালয় সম্পকির্ত সংসদয়ি স্থায়ী কমিটির সবাপতি বীর মুক্তিযোদ্দা আলহাজ্ব মো. একাব্বর হোসেন এমপি, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার দুর্লভ বিশ্বাস ও পৌর মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মোহাম্মদ আলী প্রমুখ।সন্ধায় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে নির্বাহী অফিসার ইসরাত সাদমীনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান এএসএম মোজাহিদুল ইসলাম মনির, মির্জাপুর বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের অধ্যক্ষ সালাউদ্দিন আহমেদ বাবর প্রমুখ

ঝিনাইদহ জেলার আইনজীবীদের বেহাল দশা কাটছে না

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহ জেলার অধিকাংশ আইনজীবী ও সংশ্লিষ্টদের আদালত আঙ্গিনায় চেম্বারের ব্যবস্থা না থাকায় পেশাগত কাজে  তীব্র অসুবিধার সম্মুখিন হতে হচ্ছে। জিনাইদহ জেলা জজের গাড়ী বারান্দাসহ যত্রতত্র বসে তাদের আইন ব্যবসা পরিচালনা করতে হচ্ছে। এরফলে দুরদুরান্ত থেকে আইন সেবা নিতে আসা জনসাধারণেরও ভোগান্তির স্বীকার হতে হচ্ছে।ঝিনাইদহ জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি খান আখতারুজ্জামান জানান, সমিতির চার’শ জন সদস্য, তাদের জুনিয়ার ও মহরার মিলিয়ে প্রায় এক হাজর জন স্থানীয় বিভিন্ন আদালতে কর্মরত রয়েছেন। আদালত চত্বরে সমিতির একটি ভবন আছে। ভবনটিতে অফিস, লাইব্রেরী, সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের কক্ষ রয়েছে। এছাড়া উক্ত ভবনে ২০/২৫ জন আইনজীবীর বসার ব্যবস্থা রয়েছে।ইতিপূর্বে জেলা প্রশাসক ও জেলা জজের গাড়ী বারান্দায় বসে আইনজীবী ও মহরারগণ কাজ করতেন। উক্ত যায়গা খালি করে দেওয়ার জন্য জেলা জজ ও জেলা প্রশাসক বারংবার তাগাদা দিয়ে আসছেন। আইনজীবী সমিতির সিমিত তহবিল থেকে সম্প্রতি টিনসেড করা হয়েছে। সেখানে জেলা প্রশাসন ভবনের গাড়ী বারান্দায় অবস্থানরত এক’শ জন আইনজীবীর অস্থায়ী চেম্বাররের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এখনও জেলা জজ আদালত ভবনের বারান্দাসহ যত্রতত্র বসে অইনজীবী ও সংশ্লিষ্টদের কাজ করতে হচ্ছে।সমিতির সাধারণ সম্পাদক আবু তালেব জানান, আদালত ভবন শহর থেকে বাইরে হওয়ায় সমস্যা তীব্র হয়েছে। আদালতের কাছাকাছি ব্যক্তি মালিকানায় তেমন কোন ভবন গড়ে ওঠেনি। একারণে আইনজীবীগণ ঘর ভাড়া নিয়ে চেম্বার করতে পারছেননা।এরফলে আদালত আঙ্গীনায় আইনজীবী, মহরার, ময়াক্কেলসহ সংশ্লিষ্টদের কাজ করতে তীব্র অসুবিধারর সম্মুখিন হতে হচ্ছে। সমিতির নিজস্ব আর্থীক সঙ্গতি না থাকায় আইজীবীদের চেম্বার সংকট সমাধান করা সম্ভব হচ্ছে না।আইজীবী সমিতি ভবন সম্প্রসারণ করে র্দীঘ্যদিনের এই সমস্যা সমাধান করার জন্য সরকারের পক্ষ থেকে আর্থিক সহযোগিতা দাবি করেছেন আইজীবীগণ।


সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: এ্যাডভোকেট শেখ মোঃ আব্দুল্লাহ
সম্পাদক-প্রকাশক : শেখ মোঃ তৈয়াবুর রহমান॥

যুগ্ম সম্পাদক: এস এম শাহিদুল আলম॥ সহযোগী সম্পাদক: শেখ মোঃ আরিফ আল আরাফাত
সহ-সম্পাদক: (প্রশাসন) হাজী হাবিবুর রহমান শাহেদ: সহ সম্পাদক: আজমাল মাহমুদ
সম্পাদক কর্তৃক বাড়ী বাড়ী নং- ৫৩/২, ৪র্থ তলা, রাজ-নারায়ন-ধর রোড, কিল্লার মোড় বাজার, লালবাগ, ঢাকা-১২১১
ফোন: ০১৯১৮-২০১৬২৬, ফোন: ০১৭১৫-৯৩৩১৬৮
ই-মেইল- notunvor.news@gmail.com
Designed By Hostlightbd.com
| Cyberboss.org
Translate »