,

ThemesBazar.Com

রাজাপুরে শিশু ধর্ষন এবং ২টি ধর্ষনের চেষ্টা অভিযোগ

রাজাপুর (ঝালকাঠি) প্রতিনিধি: ঝালকাঠির রাজাপুরে ৮ বছরের এক স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষন ও হত্যার হুমকির অভিযোগে মামলা দায়ের হয়েছে। গত সোমবার উপজেলার শুক্তাগড় গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ধর্ষিতা শিশুটি ৮৫ নং শুক্তাগড় সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ২য় শ্রেনীর ছাত্রী ও সাকরাইল গ্রামের হুমায়ুন সিকদারের মেয়ে। শিশুটি গত তিন দিন যাবত স্কুলে যেতে রাজি না হওয়ায় কারন জানতে চাইলে সে তার মাকে জানায়, গত সোমবার স্কুল ছুটির পর তার সহপাঠিদের সাথে বাড়ি আসার পথিমধ্যে শুক্তগড় গ্রামের মৃত আঃ মালেকের ছেলে ইউনুচ হোসেন (৪৫) পথরোধ করে এবং স্কুল পড়–য়া ছাত্র-ছাত্রীদের দাওয়া করলে সবাই পালিয়ে যেতে সক্ষম হলেও তাকে ধরে ফেলে এবং পাশের বাগানে নিয়ে ধর্ষন করে এবং একথা কারো কাছে বললে তাকে মেরে ফেলা হবে বলে হুমকি দেয়া হয়। পরে শিশুটির মা ঘটনাটি এলাকাবাসির কাছে জানালে তারা ইউনুচকে খুজতে গেলে সে পালিয়ে যায়। এঘটনায় এলাকায় আতংক বিরাজ করছে। ঐ স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা মাকসুদা বেগম বলেন, এঘটনা অতি দুঃখ জনক। এ কারনে তার স্কুলের ছাত্রীরা আতংকিত হয়ে পরেছে এবং উপস্থিতির সংখ্যা একেবারে কমে গেছে। এলাকার ইউপি সদস্য মনির হোসেন জানায় , বৃহস্পতিবার সকালে আমি এঘটনা লোকমুখে শুনে ঐ শিশুটির বাড়িতে ছুটে যাই এবং রাজাপুর থানা পুলিশকে জানাই। রাজাপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) হারুন আর রশীদ জানান ধর্ষণের অভিযোগে একটি মামলা দায়ের হয়েছে, শিশুটিকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য ঝালকাঠী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অভিযুক্ত ইউনুসকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। একই উপজেলার অন্য এক স্কুল ছাত্রী ও এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষনের চেষ্টা অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এঘটনা স্কুল ছাত্রীর মা এবং মাদ্রাসার ৫ম শ্রেনীর ছাত্রী মারুফা বেগম নিজে বাদি হয়ে রাজাপুর থানায় ভিন্ন ভিন্ন লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগে প্রকাশ, উপজেলার পুটিয়াখালী গ্রামের মৃত নুর মোহাম্মদ আকনের ছেলে কামরুল আকন (৩৫) ও মৃত মোতাহার হাওলাদারে ছেলে আজম হাওলাদার (৩৫) দীর্ঘদিন ধরে তার ৮ম শ্রেনী পড়–য়া মেয়েকে স্কুলে আসা যাওয়ার পথে কু-প্রস্তাব সহ উক্তাক্ত করে আসছে। তার কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ১৯ সেপ্টেম্বর সকালে তার বসত ঘরে মেয়েকে একা পাইয়া ধর্ষনের চেষ্টা করে তখন তার মেয়ের ডাক চিৎকারে বখাটেরা পালিয়ে যায়। পূনরায় গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে তার মেয়ে স্কুলে যাওয়ার পথে কামরুল আকন তার মেয়েকে টেনে হিচরে জোর পূবর্ক আজমের বাড়ির পূর্ব পাশের বাগানে নেয়ার চেষ্টা করে। তখন তার মেয়ের ডাকচিৎকার দিলে আসামীরা বিভিন্ন প্রকার ভয়ভীতি দেখাইয়া পালাইয়া যায়। অপর দিকে একই গ্রামের মৃত আঃ ছত্তারের মেয়ে ও পশ্চিম পুটিয়াখালী দারুল ইসলাম সিনিয়র মাদ্রাসার ৫ম শ্রেনীর ছাত্রী মারুফা বেগম প্রতিদিন মাদ্রাসায় যাওয়ার সময় ঐ দুই বখাটে কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছে। গত বুধবার দুপুরে বাড়িতে ফেরার পথে জোর পূবর্ক তাকে জড়াইয়া ধরে পাশের বাগানে নেয়ার চেষ্টা করে। অতপর তার ডাক চিৎকারে এলাকার লোকজন ছুটে আসলে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। এব্যাপারে রাজাপুর থানার ডিউটি অফিসার এস আই ফিরোজ আলম জানান, দু’টি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

ThemesBazar.Com

     More News Of This Category